বিদেশি বিনিয়োগকারীদের পছন্দের তালিকায় ১৭ প্রতিষ্ঠান

সময়: সোমবার, আগস্ট ১৯, ২০১৯ ৭:২২:১১ পূর্বাহ্ণ

নাজমুল ইসলাম ফারুক : দীর্ঘমন্দার পর বাজার কিছুটা ঘুরে দাঁড়ানোর চেষ্টা করছে। বর্তমান বাজারে অন্যান্য বিনিয়োগকারীদের পাশাপাশি বিদেশিরা তাদের পছন্দের কোম্পানিতে বিনিয়োগ করছে। জুলাই মাসে বিদেশিরা বেশ কিছু কোম্পানিতে বিনিয়োগ বাড়িয়েছে। এ সময় ১০ শতাংশের বেশি বিনিয়োগ করছে বিদেশিদের এমন পছন্দের তালিকায় রয়েছে ১৭ প্রতিষ্ঠানের শেয়ারে। ডিএসই সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে।
জুলাইয়ের শেয়ার ধারণের হিসাব অনুযায়ী, আলোচ্য মাসে বিদেশিরা সবচেয়ে বেশি শেয়ারধারণ করেছে জেএমআই সিরিঞ্জ অ্যান্ড মেডিক্যাল ডিভাইস লিমিটেডের। কোম্পানিটিতে বিদেশি বিনিয়োগকারীরা শেয়ারধারণ করেছে ৫০ দশমিক ২৩ শতাংশ। অথচ এ কোম্পানিটিতে জুন মাসেও বিদেশিদের শেয়ারধারণ ছিল শূন্যের কোটায়। বিদেশিদের শেয়ার ধারণের দিক দিয়ে দ্বিতীয় অবস্থানে রয়েছে অলিম্পিক ইন্ডাস্ট্রিজ। কোম্পানিটিতে বিদেশিদের ৪৪ দশমিক ১৬ শতাংশ শেয়ার রয়েছে। এছাড়া তৃতীয় অবস্থানে রয়েছে ডেল্টা ব্র্যাক হাউজিং ফাইন্যান্স করপোরেশন লিমিটেড। কোম্পানিটির ৪৩ দশমিক ২৯ শতাংশ শেয়ার বিদেশিদের হাতে। তাছাড়া বেক্সিমকো ফার্মার ৪০ দশমিক ৭৯ শতাংশ, ব্র্যাক ব্যাংকের ৪০ দশমিক ৬৯ শতাংশ, শেফার্ড ইন্ডাস্ট্রিজের ২৪ দশমিক ৮৮ শতাংশ, ইসলামী ব্যাংকের ২৪ দশমিক শূন্য ১ শতাংশ, এমএল ডাইংয়ের ২১ দশমিক ৮৯ শতাংশ, রেনাটা লিমিটেডের ২২ দশমিক ৩ শতাংশ, বিএসআরএম লিমিটেডের ২১ দশমিক ২৯ শতাংশ, স্কয়ার ফার্মার ১৯ দশমিক ৮৫ শতাংশ, ভিএফএস থ্রেড ডাইংয়ের ১৮ দশমিক ৩০ শতাংশ, কুইন সাউথ টেক্সটাইলের ১৬ দশমিক ৮১ শতাংশ, ব্রিটিশ আমেরিকান টোব্যাকোর (বিএটিবিসি) ১৬ দশমিক ৩৯ শতাংশ, আমরা নেটওয়ার্কের ১৬ দশমিক শূন্য ৮ শতাংশ, সিটি ব্যাংকের ১৫ দশমিক শূন্য ২ শতাংশ এবং আইডিএলসি ফাইন্যান্সের ১৩ দশমিক ৮২ শতাংশ শেয়ার বিদেশিরা ধারণ করছে।
আলোচ্য কোম্পানিগুলোর মধ্যে বিদেশিরা আগের মাসের চেয়ে জুলাইয়ে ১০টি কোম্পানিতে বিনিয়োগ বাড়িয়েছে। এছাড়া ৫ কোম্পানির কিছু শেয়ার ছেড়ে দিয়েছে। তবে বিদেশিদের ধারণ করা ২ কোম্পানির শেয়ার অপরিবর্তিত রয়েছে। যেসব কোম্পানি থেকে বিদেশিরা কিছু শেয়ার ছেড়ে দিয়েছে সেগুলো হচ্ছে- কুইন সাউথ টেক্সটাইল, ইসলামী ব্যাংক, ব্র্যাক ব্যাংক, রেনাটা লিমিটেড এবং স্কয়ার ফার্মাসিউটিক্যালস।
সংশ্লিষ্টরা বলছেন, বাজারে মৌলভিত্তি সম্পন্ন কিছু কোম্পানি রয়েছে। যেগুলো বিদেশিদের পছন্দের তালিকায় আছে। এসব কোম্পানিতে বিনিয়োগ করতে তাদের বেশ আগ্রহ রয়েছে। ফলে কিছু কোম্পানির পরিচালনা পর্ষদেও বিদেশিরা আসছে। সামনে আরও দুয়েকটি কোম্পানিতে বিনিয়োগের মাধ্যমে বিদেশিরা পর্ষদে আসার সম্ভাবনা রয়েছে। মৌলভিত্তি সম্পন্ন কোম্পানি আসলেই পুঁজিবাজারে বিনিয়োগকারীদের আস্থা বাড়বে, বিদেশি বিনিয়োগ বাড়বে। এর মাধ্যমে বাজারে দীর্ঘমেয়াদি স্থিতিশীলতা বজায় থাকবে বলে মনে করছেন তারা।
এ সম্পর্কে পুঁজিবাজার বিশ্লেষক অধ্যাপক আবু আহমেদ ‘দৈনিক শেয়ারবাজার প্রতিদিন’কে বলেন, আমাদের বাজারে মৌলভিত্তি সম্পন্ন কোম্পানি খুব কম। তাই ঘুরে ফিরে বিদেশিরা কয়েকটি কোম্পানিতে বিনিয়োগ করে। যদি আইপিওর মাধ্যমে আরও মৌলভিত্তি সম্পন্ন কোম্পানি বাজারে আসতো, তাহলে বিদেশি বিনিয়োগ বাড়তো। সাধারণ বিনিয়োগকারীদের আস্থা বাড়তো। এর মাধ্যমে বাজার দীর্ঘমেয়াদি স্থিতিশীল হতো।
এদিকে জেএমআই সিরিঞ্জের মালিকানার আসছে জাপানি কোম্পানি নিপরো করপোরেশনÑ এমন ঘোষণা আগেই দেয়া হয়েছিল। ইতিমধ্যে বিদেশিরা কোম্পানিটি শেয়ারধারণ করেছে। ফলে বিদেশি বিনিয়োগের শীর্ষে উঠে এসেছে জেএমআই। শেয়ারধারণের মধ্য দিয়েছে কোম্পানির পরিচালনা পর্ষদে আসবে বিদেশিরা।

এ সম্পর্কে জেএমআই সিরিঞ্জ অ্যান্ড মেডিক্যাল ডিভাইস লিমিটেডের কোম্পানি সচিব মোহাম্মদ তারেক হোসেন খান ‘দৈনিক শেয়ারবাজার প্রতিদিন’কে বলেন, আমাদের কোম্পানির শেয়ার ইতিমধ্যে বিদেশি প্রতিষ্ঠান নিপরো করপোরেশনের নিকট হস্তান্তর করা হয়েছে। ভবিষ্যতে তারা আমাদের পর্ষদে আসবে।

দৈনিক শেয়ারবাজার প্রতিদিন/এসএ/খান

Tagged