সূচক কমলেও বেড়েছে লেনদেন

অব্যহত দরপতনে আস্থাসঙ্কট বাড়ছে

সময়: মঙ্গলবার, ফেব্রুয়ারি ২৫, ২০২০ ৬:০৪:১০ অপরাহ্ণ


মো. সাজিদ খান : শেয়ারবাজারে চলছে অব্যহত দরপতন। এতে বিনিয়োগকারীর মধ্যে আস্থা সঙ্কট বাড়তে শুরু করেছে। গত কয়েকদিন ধরেই ধারাবাহিকভাবে সূচক কমছে। পাশাপাশি লেনদেন ও বাজার মূলধন কমছে। এর ফলে বিনিয়োগকারীরা হতাশ হয়ে লেনদেন থেকে মুখ ফিরিয়ে নিচ্ছে বলে মনে করছেন বাজার সংশ্লিষ্টরা। তাদের মতে, এই মুহুর্তে বাজার উন্নয়নে মনিটরিং বাড়ানো উচিত এবং স্থিতিশীল ফিরিয়ে আনার জন্য যথাযথ ইতিবাচক পদক্ষেপ নেয়া জরুরি। তা-না হলে বাজারকে ঘিরে যে প্রত্যাশা ছিল বিনিয়োগকারীদের মধ্যে তা আবারও হতাশায় পরিনত হতে পারে।
এদিকে, এদিকে আজ সপ্তাহের দ্বিতীয় কার্যদিবসে উভয় স্টক এক্সচেঞ্জেই সূচক কমেছে। এদিন উভয় স্টক এক্সচেঞ্জেই অধিকাংশ কোম্পানির শেয়ার দর বাড়লেও বাজারমূলধন কমেছে। ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জে (ডিএসই) আজ লেনদেন বেড়েছে ২৯ কোটি ১১ লাখ ৯৪ হাজার ২৪৮ টাকা ১০ পয়সা। বাজার মূলধন কমেছে ২ হাজার ২৩৭ কোটি ৩৭ লাখ ৬১ হাজার ২০৯ টাকা ৯৭ পয়সা।
চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জে (সিএসই) লেনদেন কমেছে ৪ কোটি ১৪ লাখ ৩৬ হাজার ৭৬ টাকা ৯০ পয়সা। এদিন সিএসই’তে বাজার মূলধন কমেছে ২ হাজার ৮৬৭ কোটি ১৭ লাখ ১৩ হাজার ৯৯ টাকা ১০ পয়সা। সংশ্লিষ্ট স্টক এক্সচেঞ্জ সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে।
বাজার পর্যালোচনায় দেখা যায়, আজ ডিএসই’র ব্রড ইনডেক্স আগের দিনের চেয়ে ২৯.৬৯ পয়েন্ট কমে দাঁড়ায় ৪৬২১.১৯ পয়েন্টে। আর ডিএসই শরিয়াহ্্ সূচক ৩.৬৩ পয়েন্ট কমে ১০৬৯.৯৩ পয়েন্ট এবং ডিএসই৩০ সূচক ২০.২৪ পয়েন্ট কমে ১৫৫০.৯৭ পয়েন্টে দাঁড়ায়। সারা দিন লেনদেনকৃত ৩৫৫টি কোম্পানি ও মিউচ্যুয়াল ফান্ডের মধ্যে বেড়েছে ১৭৯টি, কমেছে ১২৫টি এবং অপরিবর্তিত ছিল ৫১টি দর। এদিন ডিএসই’তে মোট ২১ কোটি ১৭ লাখ ৭৮ হাজার ৬৫০টি শেয়ার এক লাখ ৫৪ হাজার ৯৬৯বার হাতবদল হয়, যাদের মোট মূল্য ৬২৯ কোটি ৬৮ লাখ ১৪ হাজার ২৯০ টাকা। আজ বাজার মূলধন ছিল ৩ লাখ ৫২ হাজার ৭৮৭ কোটি ১৪ লাখ ২৩ হাজার ৯৮৭ টাকা ৪৮ পয়সা।
গতকাল ডিএসই’র ব্রড ইনডেক্স ৪৮.০০ পয়েন্ট কমে দাঁড়ায় ৪৬৫০.৮৯ পয়েন্টে। আর ডিএসই শরিয়াহ্্ সূচক ১২.৪২ পয়েন্ট কমে ১০৭৩.৫৭ পয়েন্ট এবং ডিএসই৩০ সূচক ২০.৫৪ পয়েন্ট কমে ১৫৭১.২১ পয়েন্টে দাঁড়ায়। সারা দিন লেনদেনকৃত ৩৫৫টি কোম্পানি ও মিউচ্যুয়াল ফান্ডের মধ্যে বেড়েছে ১০৩টি, কমেছে ২০১টি এবং অপরিবর্তিত ছিল ৫১টি দর। এদিন ডিএসই’তে মোট ২০ কোটি ৮০ লাখ ৩১ হাজার ৪১৭টি শেয়ার এক লাখ ৪৯ হাজার ৩০৭বার হাতবদল হয়, যাদের মোট মূল্য ৬০০ কোটি ৫৬ লাখ ২০ হাজার ৪১ টাকা ৯০ পয়সা। আগের কার্যদিবসে বাজার মূলধন ছিল ৩ লাখ ৫৫ হাজার ২৪ কোটি ৫১ লাখ ৮৫ হাজার ১৯৭ টাকা ৪৫ পয়সা।
ক্যাটাগরিভিত্তিক লেনদেনের ক্ষেত্রে ডিএসই’তে আজ ‘এ’ ক্যাটাগরির ২৫৭টি কোম্পানির মধ্যে বেড়েছে ১২৩টি, কমেছে ১০১টি এবং অপরিবর্তিত ছিল ৩৩টির শেয়ার দর। ‘বি’ ক্যাটাগরির ৪৮টি কোম্পানির মধ্যে বেড়েছে ৩৩টি, কমেছে ৮টির এবং অপরিবর্তিত রয়েছে ৭টির শেয়ার দর। ‘এন’ ক্যাটাগরির ২টি কোম্পানির মধ্যে ২টিরই দর কমেছে। ‘জেড’ ক্যাটাগরির ৪৮টি কোম্পানির মধ্যে বেড়েছে ২৩টি, কমেছে ১৪টি এবং অপরিবর্তিত ছিল ১১টির শেয়ার দর। এছাড়া, ৩৭টি মিউচ্যুয়াল ফান্ডের মধ্যে বেড়েছে ৮টি, কমেছে ১৩টির এবং অপরিবর্তিত ছিল ১৬টির দর।
গতকাল ক্যাটাগরিভিত্তিক লেনদেনের ক্ষেত্রে ডিএসই’তে ‘এ’ ক্যাটাগরির ২৫৭টি কোম্পানির মধ্যে বেড়েছে ৬৯টি, কমেছে ১৫৬টি এবং অপরিবর্তিত ছিল ৩২টির শেয়ার দর। ‘বি’ ক্যাটাগরির ৪৮টি কোম্পানির মধ্যে বেড়েছে ১৮টি এবং কমেছে ২৫টির এবং অপরিবর্তিত রয়েছে ৫টির শেয়ার দর। ‘এন’ ক্যাটাগরির ২টি কোম্পানির মধ্যে দর বেড়েছে একটি এবং কমেছে একটির দর। ‘জেড’ ক্যাটাগরির ৪৮টি কোম্পানির মধ্যে বেড়েছে ১৫টি, কমেছে ১৯টি এবং অপরিবর্তিত ছিল ১৪টির শেয়ার দর। এছাড়া, ৩৭টি মিউচ্যুয়াল ফান্ডের মধ্যে বেড়েছে ১০টি, কমেছে ১৩টির এবং অপরিবর্তিত ছিল ১৪টির দর।
আজ ‘এ’ ক্যাটাগরির ২৫৭ কোম্পানির মোট ১৬ কোটি ৪৫ লাখ ৬০টি শেয়ার এক লাখ ২৫ হাজার ১৫৭বার হাতবদল হয়, যাদের মোট মূল্য ৫৩৪ কোটি ৩৬ লাখ ৫৫ হাজার টাকা। ‘বি’ ক্যাটাগরির ৪৮ কোম্পানির ৩ কোটি ৮১ লাখ ৩৯ হাজার ৭৯৭টি শেয়ার ২৪ হাজার ৫৩৩বার হাতবদল হয়, যাদের মোট মূল্য ৭৭ কোটি ৬৪ লাখ ৭৫ হাজার টাকা। ‘এন’ ক্যাটাগরির ২ কোম্পানির ১৮ লাখ ১৮ হাজার ৯৮৭টি শেয়ার ২ হাজার ৬৫৯ বার হাতবদল হয়, যাদের মোট মূল্য ৭ কোটি ১৯ লাখ ৮৭ হাজার টাকা। ‘জেড’ ক্যাটাগরির ৪৮ কোম্পানির ৫৭ লাখ ২৭ হাজার ১০৬টি শেয়ার ২ হাজার ৫৫০ বার হাতবদল হয়, যাদের মোট মূল্য ৩ কোটি ৫ লাখ ৭২ হাজার টাকা।
গতকাল ‘এ’ ক্যাটাগরির ২৫৭ কোম্পানির মোট ১৫ কোটি ৫২ লাখ ৬৬ হাজার ৩২৭টি শেয়ার এক লাখ ২০ হাজার ৭৬৬বার হাতবদল হয়, যাদের মোট মূল্য ৪৯১ কোটি ৩ লাখ ৬৯ হাজার টাকা। ‘বি’ ক্যাটাগরির ৪৮ কোম্পানির ৩ কোটি ২২ লাখ ৫৪ হাজার ৪৪৬টি শেয়ার ২৩ হাজার ৩০০বার হাতবদল হয়, যাদের মোট মূল্য ৭০ কোটি ৬৯ লাখ ৭২ হাজার টাকা। ‘এন’ ক্যাটাগরির ২ কোম্পানির ২৩ লাখ ১৬ হাজার ২২৪টি শেয়ার ২ হাজার ৫১৮ বার হাতবদল হয়, যাদের মোট মূল্য ৯ কোটি ৫ লাখ ৫৮ হাজার টাকা। ‘জেড’ ক্যাটাগরির ৪৮ কোম্পানির ৭৪ লাখ ২৪ হাজার ৯৯৬টি শেয়ার ২ হাজার ৬৫৭ বার হাতবদল হয়, যাদের মোট মূল্য ৩ কোটি ৬৬ লাখ ৯৪ হাজার টাকা।
অন্যদিকে, চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জে (সিএসই) আজ সিএসই’র সার্বিক সূচক ১১৫.০৬ পয়েন্ট কমে দাঁড়ায় ১৪১৪৮.৯২ পয়েন্টে। সিএসইএক্স সূচক ৭২.৪২ পয়েন্ট কমে দাঁড়ায় ৮৫৮৩.৭৬ পয়েন্টে। আজ মোট ২৫৩টি কোম্পানির শেয়ার লেনদেন হয়েছে। এর মধ্যে বেড়েছে ১১৯টি, কমেছে ১০০টি এবং অপরিবর্তিত ছিল ৩৪ কোম্পানির শেয়ার দর। আর দিন শেষে এক কোটি ২ লাখ ৮১ হাজার ৯৯৩টি শেয়ার ও ইউনিট ৯ হাজার ১২৬বার হাতবদল হয়েছে, যাদের মোট মূল্য ছিল ২১ কোটি ৮৪ লাখ ১০ হাজার ২৩৬ টাকা ২০ পয়সা। আজ সিএসই’র বাজারমূলধন ছিল ২ লাখ ৮২ হাজার ৭৫১ কোটি ১৪ লাখ ৪৫ হাজার ৫৪৬ টাকা ২০ পয়সা।
গতকাল চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জে (সিএসই) সার্বিক সূচক ১১৬.১০ পয়েন্ট কমে দাঁড়ায় ১৪২৬৩.৯৯ পয়েন্টে। সিএসইএক্স সূচক ৭০.২০ পয়েন্ট কমে দাঁড়ায় ৮৬৫৬.১৮ পয়েন্টে। আজ মোট ২৪৪টি কোম্পানির শেয়ার লেনদেন হয়েছে। এর মধ্যে বেড়েছে ৭৮টি, কমেছে ১৩৪টি এবং অপরিবর্তিত ছিল ৩২ কোম্পানির শেয়ার দর। আর দিন শেষে ৯৮ লাখ ২৭ হাজার ২৫৯টি শেয়ার ও ইউনিট ৮ হাজার ৬৯৮বার হাতবদল হয়েছে, যাদের মোট মূল্য ছিল ২৫ কোটি ৯৮ লাখ ৪৬ হাজার ৩১৩ টাকা ১০ পয়সা। গতকাল সিএসই’র বাজারমূলধন ছিল ২ লাখ ৮৫ হাজার ৬১৮ কোটি ৩১ লাখ ৫৮ হাজার ৬৪৫ টাকা ৩০ পয়সা।

দৈনিক শেয়ারবাজার প্রতিদিন/এসএ/খান

Share
নিউজটি ৩৬৭ বার পড়া হয়েছে ।
Tagged