পূর্ব ঘোষণা ছাড়াই ব্যাংক খাতের উদ্যোক্তা-পরিচালকদের শেয়ার ক্রয়

সময়: বুধবার, আগস্ট ৭, ২০১৯ ৫:৫০:৩৮ পূর্বাহ্ণ


পূর্ব ঘোষণা ছাড়াই বাজার থেকে ব্যাংকের শেয়ার কিনে নিচ্ছেন সংশ্লিষ্ট ব্যাংকের উদ্যোক্তা-পরিচালকরা। সম্প্রতি পুঁজিবাজারে এ ধরনের একটি খবর ভেসে বেড়াচ্ছে। বিষয়টিকে একেবারে ভিত্তিহীন বলে উড়িয়ে দেয়া যায় না। কারণ মন্দা বাজারে ব্যাংক খাতের শেয়ারে গত কয়েক মাস ধরে দরপতন অব্যাহত রয়েছে। গত জুলাইয়ে দরপতন আরও বেড়েছে। ফলে অধিক লোকসানের ভয়ে ব্যাংক খাতের শেয়ার ছেড়ে দিচ্ছেন অনেক বিনিয়োগকারী। আর বিনিয়োগকারীদের ছেড়ে দেয়া এসব শেয়ার কিনে নিচ্ছেন সংশ্লিষ্ট ব্যাংকের উদ্যোক্তা-পরিচালকরা। যে কারণে সাম্প্রতিক সময়ে বেশকিছু ব্যাংকের উদ্যোক্তা-পরিচালকদের শেয়ার ধারণের পরিমাণ বেড়েছে। এর বিপরীতে শেয়ার কেনার বিষয়ে তাদের কোনো পূর্ব ঘোষণা দেখা যায় না।
ব্যাংক খাতের লেনদেন চিত্রে দেখা যায়, জুন মাসে মে মাসের তুলনায় সাধারণ বিনিয়োগকারীদের শেয়ার ধারণের পরিমাণ কমেছে ১০ দশমিক ৬২ শতাংশ। একই সময়ে শেয়ারধারণ ৯ দশমিক ২৩ শতাংশ বাড়িয়েছেন উদ্যোক্তা পরিচালকরা। গত জুনে ব্যাংক খাতের ২৫৮ কোটি ৪০ লাখ শেয়ার বিক্রি করে দিয়েছেন সাধারণ বিনিয়োগকারীরা। তাদের ছেড়ে দেয়া এসব শেয়ারের অধিকাংশই কিনে নিয়েছেন সংশ্লিষ্ট ব্যাংকের উদ্যোক্তা পরিচালকরা। তারা বাজার থেকে ২৪৪ কোটি ৫৮ লাখ শেয়ার কিনে নিয়েছেন; যেগুলোর অধিকাংশই বিধিবদ্ধ ঘোষণা ছাড়া।
বাজার বিশ্লেষকরা বলছেন, বাজারে দীর্ঘমেয়াদে মন্দাভাব চলতে থাকায় সাধারণ বিনিয়োগকারীরা আর শেয়ার ধরে রাখতে পারছেন না। লোকসান হওয়া সত্ত্বেও অনেকে আতঙ্কিত হয়ে হাতে থাকা ব্যাংকিং খাতের শেয়ার ছেড়ে দিচ্ছেন। আর কম দাম পেয়েই মূলত উদ্যোক্তা পরিচালকরা ব্যাংকের শেয়ার কিনে নিচ্ছেন বলে মনে করছেন বাজার সংশ্লিষ্টরা।
উল্লেখ্য, বছরের শুরু থেকেই পুঁজিবাজারে টানা মন্দাভাব চলছে। ফেব্রুয়ারির দ্বিতীয় কার্যদিবস থেকে গত সপ্তাহের শেষ কার্যদিবস পর্যন্ত ৬৬৯ পয়েন্ট (ডিএসইএক্স) হারিয়েছে দেশের প্রধান পুঁজিবাজার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জ (ডিএসই)। এ সময়ে অন্য সব তালিকাভুক্ত কোম্পানির সঙ্গে সঙ্গে পড়ে গেছে ব্যাংকগুলোর শেয়ার দরও। তালিকাভুক্ত ৩০টি ব্যাংকের মধ্যে ২৬টি ব্যাংকের শেয়ারের সূচকই অব্যাহতভাবে নিচের দিকে নেমেছে।

Share
নিউজটি ৩৬৪ বার পড়া হয়েছে ।