উজবেকিস্তানে টেক্সটাইল সম্মেলনে বাণিজ্যমন্ত্রী

বাণিজ্য বাধা দূর হলে রফতানি বাড়বে কয়েকগুন

সময়: বৃহস্পতিবার, সেপ্টেম্বর ১২, ২০১৯ ১১:৩৩:৪৫ পূর্বাহ্ণ


 

নিজস্ব প্রতিবেদক : বাণিজ্যমন্ত্রী টিপু মুন্শি বলেছেন, বাংলাদেশ তৈরি পোশাক রফতানিতে পৃথিবীর মধ্যে দ্বিতীয় স্থান দখল করে আছে। বিশ^বাজারে দিনদিন তৈরি পোশাক রফতানি বাড়ছে। বাংলাদেশের কারখানাগুলোতে নিরাপদ ও কর্মবান্ধব পরিবেশে শ্রমিকরা কাজ করছে। দেশে একের পর এক গ্রীণ ফ্যাক্টরি গড়ে উঠছে। উজবেকিস্তানসহ সিআইএস (কমনওয়েল্থ অব ইন্ডিপেন্ডেন্ট স্টেটস) ভুক্ত দেশগুলোতে (আজারবাইজান, বেলারুশ, কাজাখাস্তান, কিরগিস্তান, আরমেনিয়া, মলডোভা, রাশিয়া ও তাজিকিস্তান) বাংলাদেশি পণ্যের রফতানি বাড়ানোর উদ্যোগ গ্রহণ করা হয়েছে। বাণিজ্য বাধা দূর হলে রফতানি কয়েকগুন বাড়বে।
উজবেকিস্তানের রাজধানী তাসখন্দে পাঁচদিনব্যাপী চলমান ‘গ্লোবাল টেক্সটাইল ডে’-এর উদ্বোধনী অধিবেশনে বিশেষ অতিথির বক্তব্যে গত মঙ্গলবার তিনি এসব কথা বলেন। গতকাল বুধবার বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ কথা জানানো হয়।
বাণিজ্যমন্ত্রী বলেন, বাংলাদেশের তৈরি পোশাক, চামড়া ও চামড়াজাত পণ্য, পাট ও পাটজাত পণ্য এবং ফার্মাসিউটিক্যাল্স ইত্যাদির প্রচুর চাহিদা রয়েছে উজবেকিস্তানে। কিন্তু কিছু জটিলতার কারণে প্রত্যাশা মোতাবেক পণ্য রফতানি সম্ভব হচ্ছে না। এমতাবস্থায় জটিলতা নিরসনে উজবেকিস্তানের সহযোগিতা চায় বাংলাদেশ।
তিনি বলেন, সিআইএসভুক্ত দেশগুলোর সঙ্গে বাংলাদেশের অর্থনৈতিক সহযোগিতা ও রপ্তানি বাড়ানোর লক্ষ্যে গত মে মাসে ‘ইউরেশিয়ান ইকনোমিক কমিশন’-এর সঙ্গে একটি সমঝোতা স্মারক সই করা হয়েছে। গত ২০১৭-২০১৮ অর্থবছরে বাংলাদেশ উজবেকিস্তানে রফতানি করেছে ২৯ দশমিক ২৯ মিলিয়ন মার্কিন ডলার মূল্যের পণ্য এবং একই সময়ে আমদানি করা হয়েছে ১৯৩ দশমিক ৬০ মিলিয়ন মার্কিন ডলার মূল্যের পণ্য।

উদ্বোধনী অধিবেশনে অন্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন উজবেকিস্তানের উপ-প্রধানমন্ত্রী ইলিয়রগানিয়েভ, তুরস্কের রাষ্ট্রদূত, আইএলও ও আইএফসি’র প্রতিনিধিরা। সম্মেলনে আয়োজক সংস্থার পক্ষ থেকে উপস্থাপিত মূল প্রতিবেদনে তৈরি পোশাক খাতের বিশ্ববাণিজ্য পরিস্থিতির হালনাগাদ চিত্র তুলে ধরা হয় এবং এতে বাংলাদেশের ভূমিকা গুরুত্বের সাথে উল্লেখ করা হয় বলে বাণিজ্য মন্ত্রণালয় জানায়।
দৈনিক শেয়ারবাজার প্রতিদিন/এসএ/খান

Share
নিউজটি ৩৩৬ বার পড়া হয়েছে ।