আর্থিক খাতে প্রাতিষ্ঠানিক বিনিয়োগ বেড়েছে

সময়: মঙ্গলবার, আগস্ট ২৭, ২০১৯ ৩:৪৫:৫১ পূর্বাহ্ণ


তাকী মোহাম্মদ জোবায়ের : চলতি বছরের জুলাই মাসে প্রাতিষ্ঠানিক বিনিয়োগ বেড়েছে ব্যাংকবহির্ভূত আর্থিক প্রতিষ্ঠানগুলোতে। জুন মাসের তুলনায় জুলাই মাসে বিনিয়োগ বেড়েছে ৪ দশমিক ১০ শতাংশ। এই সময়ে সাধারণ বিনিয়োগকারীরা এসব প্রতিষ্ঠানে বিনিয়োগ কমিয়েছেন ৪ দশমিক ৪৪ শতাংশ। বিদেশি বিনিয়োগকারীরাও আর্থিক প্রতিষ্ঠানগুলোতে বিনিয়োগ দশমিক ৮৫ শতাংশ কমিয়েছেন। আর আলোচ্য সময়ে পরিচালকদের শেয়ারধারণ বেড়েছে ১ দশমিক ১৯ শতাংশ। ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জের (ডিএসই) ওয়েবসাইটে প্রকাশিত তালিকাভুক্ত ২৩টি আর্থিক প্রতিষ্ঠানের শেয়ারধারণ সংক্রান্ত জুলাই ২০১৯ ভিত্তিক প্রতিবেদন বিশ্লেষণ করে এসব তথ্য পাওয়া গেছে।
বিশ্লেষণে দেখা গেছে, সাধারণ বিনিয়োগকারীরা জুন মাসের তুলনায় জুলাই মাসে আর্থিক প্রতিষ্ঠানগুলোর যে পরিমাণ শেয়ার কিনেছেন তার চেয়ে ২১ কোটি ৮৩ লাখ শেয়ার ছেড়ে দিয়েছেন। এ সময়ে প্রাতিষ্ঠানিক বিনিয়োগকারীরা আর্থিক প্রতিষ্ঠানগুলোর শেয়ার বিক্রয়ের তুলনায় ক্রয় বেশি করেছেন ২০ কোটি ১৬ লাখটি। স্পন্সর পরিচালকরা শেয়ার বিক্রয়ের তুলনায় ক্রয় বেশি করেছেন ৫ কোটি ৬৫ লাখটি। আর বিদেশি বিনিয়োগকারীরা ক্রয়ের তুলনায় বিক্রয় বেশি করেছে ৪ কোটি ১৮ লাখটি।
তথ্য-উপাত্ত বিশ্লেষণে দেখা গেছে, জুলাই মাসে বিডি ফাইন্যান্সে প্রাতিষ্ঠানিক বিনিয়োগ কমেছে দশমিক ৫১ শতাংশ। একই সময়ে সমপরিমাণ বিনিয়োগ বেড়েছে সাধারণ বিনিয়োগকারীদের।
বাংলাদেশ ইন্ডাস্ট্রিয়াল ফাইন্যান্স করপোরেশনে প্রাতিষ্ঠানিক বিনিয়োগ বেড়েছে দশমিক ৫৫ শতাংশ। একই পরিমাণ বিনিয়োগ কমেছে সাধারণ বিনিয়োগকারীদের।
ডেল্টা ব্র্যাক হাউজিং ফাইন্যান্সে জুলাইতে প্রাতিষ্ঠানিক বিনিয়োগ বেড়েছে দশমিক ১৭ শতাংশ। সাধারণ বিনিয়োগ কমেছে দশমিক ১৬ শতাংশ। প্রতিষ্ঠানটিতে বিদেশি বিনিয়োগ কমেছে দশমিক শূন্য ১ শতাংশ।
জুলাইতে ফারইস্ট ফাইন্যান্সে প্রাতিষ্ঠানিক বিনিয়োগ বেড়েছে দশমিক ৬৮ শতাংশ। সাধারণ বিনিয়োগ কমেছে একই পরিমাণে।
ফাস ফাইন্যান্সে জুলাইতে প্রাতিষ্ঠানিক বিনিয়োগ বেড়েছে বড় অংকের। এ সময়ে প্রতিষ্ঠানটিতে প্রাতিষ্ঠানিক বিনিয়োগকারীরা ৩ দশমিক ১৮ শতাংশ শেয়ারধারণ বাড়িয়েছে এবং সাধারণ বিনিয়োগকারীরা একই হারে শেয়ার ছেড়ে দিয়েছে।
ফার্স্ট ফাইন্যান্সে জুলাই মাসে প্রাতিষ্ঠানিক বিনিয়োগ কমেছে দশমিক ৮৩ শতাংশ। একই সময়ে সাধারণ বিনিয়োগ বেড়েছে একই হারে।
জিএসপি ফাইন্যান্সে জুলাইতে বিদেশি বিনিয়োগ কমেছে দশমিক ২০ শতাংশ। এই সময়ে সাধারণ বিনিয়োগ বেড়েছে দশমিক ১৬ শতাংশ ও প্রাতিষ্ঠানিক বেড়েছে দশমিক শূন্য ৪ শতাংশ।
ইনভেস্টমেন্ট করপোরেশন অব বাংলাদেশে জুলাই মাসে সাধারণ বিনিয়োগ দশমিক শূন্য ১ শতাংশ বেড়েছে। একই হারে কমেছে প্রাতিষ্ঠানিক বিনিয়োগ।
আইডিএলসিতে জুলাই মাসে প্রাতিষ্ঠানিক বিনিয়োগ বেড়েছে দশমিক ৭৩ শতাংশ। বিদেশি বিনিয়োগ কমেছে দশমিক ১৮ শতাংশ; আর সাধারণ বিনিয়োগ কমেছে দশমিক ৫৫ শতাংশ।
জুলাইতে ইন্টারন্যাশনাল লিজিং অ্যান্ড ফাইন্যান্সে ১ দশমিক ১৮ শতাংশ প্রাতিষ্ঠানিক বিনিয়োগ বেড়েছে; সমপরিমাণ বিনিয়োগ কমেছে সাধারণ বিনিয়োগকারীদের।
ইসলামিক ফাইন্যান্সে আলোচ্য সময়ে প্রাতিষ্ঠানিক বিনিয়োগ বেড়েছে দশমিক ৩৩ শতাংশ; একই হারে কমেছে সাধারণ বিনিয়োগ।
মাইডাস ফাইন্যান্সে আলোচ্য সময়ে পরিচালকদের শেয়ারধারণ বেড়েছে ২ দশমিক ২৪ শতাংশ; প্রাতিষ্ঠানিক বেড়েছে দশমিক ৩১ শতাংশ; বিদেশিদের বিনিয়োগ কমেছে দশমিক ১৭ শতাংশ; আর সাধারণ বিনিয়োগ কমেছে ২ দশমিক ৩৮ শতাংশ।
জুলাই মাসে ইউনিয়ন ক্যাপিটালে পরিচালকদের বিনিয়োগ কমেছে ১ দশমিক শূন্য ৫ শতাংশ; প্রাতিষ্ঠনিক বেড়েছে দশমিক শূন্য ৪ শতাংশ; সাধারণ বিনিয়োগ বেড়েছে ১ দশমিক ০১ শতাংশ।
আলোচ্য সময়ে লংকা বাংলা ফাইন্যান্সে প্রাতিষ্ঠানিক বিনিয়োগ বেড়েছে দশমিক শূন্য ৫ শতাংশ; বিদেশি বিনিয়োগ কমেছে দশমিক ২০ শতাংশ এবং সাধারণ বিনিয়োগ বেড়েছে দশমিক ১৫ শতাংশ।
ন্যাশনাল হাউজিং অ্যান্ড ফাইন্যান্সে প্রাতিষ্ঠানিক বিনিয়োগ কমেছে দশমিক ৯২ শতাংশ। একই পরিমাণ বিনিয়োগ বেড়েছে সাধারণ বিনিয়োগকারীদের।
ফনিক্স ফাইন্যান্সের প্রাতিষ্ঠানিক বিনিয়োগ বেড়েছে দশমিক শূন্য ৮ শতাংশ; বিদেশি বিনিয়োগ কমেছে দশমিক শূন্য ৯ শতাংশ।
পিপলস লিজিং অ্যান্ড ফাইন্যান্সে প্রাতিষ্ঠানিক বিনিয়োগ বেড়েছে দশমিক ৭৪ শতাংশ; সাধারণ বিনিয়োগ কমেছে একই হারে।
জুলাইতে ইউনাইটেড ফাইন্যান্সে প্রাতিষ্ঠানিক বিনিয়োগ কমেছে দশমিক ৩২ শতাংশ; একই হারে বেড়েছে সাধারণ বিনিয়োগ।
উত্তরা ফাইন্যান্সে প্রাতিষ্ঠানিক বিনিয়োগ বেড়েছে দশমিক ২৪ শতাংশ; সাধারণ বিনিয়োগ কমেছে একই পরিমাণে।
বে-লিজিংয়ে প্রাতিষ্ঠানিক বিনিয়োগ বেড়েছে দশমিক শূন্য ৪ শতাংশ; সাধারণ বিনিয়োগ কমেছে একই হারে।
দৈনিক শেয়ারবাজার প্রতিদিন/এসএ/খান

Share
নিউজটি ৪৮৪ বার পড়া হয়েছে ।
Tagged