editorial

‘জেড’ ক্যাটাগরির কোম্পানির দৌরাত্ম্য প্রতিরোধে বাস্তবমুখী পদক্ষেপ প্রয়োজন

সময়: মঙ্গলবার, আগস্ট ২৭, ২০১৯ ৩:৩৯:৩২ পূর্বাহ্ণ


সম্প্রতি পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত চারটি কোম্পানির সার্বিক অবস্থা খতিয়ে দেখতে ‘বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশন’ (বিএসইসি)-এর কাছে অনুমতি চেয়েছে ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জ (ডিএসই)। কোম্পানিগুলো হচ্ছে- ‘বীচ হ্যাচারি লিমিটেড’, ‘ইউনাইটেড এয়ারওয়েজ (বিডি) লিমিটেড’, ‘আইসিবি ইসলামী ব্যাংক’ ও ‘ইনফরমেশন সার্ভিসেস নেটওয়ার্ক’। দীর্ঘদিন ধরে শেয়ারহোল্ডারদের লভ্যাংশ না দেয়াসহ নানা কারণে কোম্পানিগুলো বর্তমানে ‘জেড’ ক্যাটাগরিতে অবস্থান করছে। এদিকে আলোচ্য কোম্পানিগুলো উৎপাদন না থাকলেও এগুলোর শেয়ার দর প্রায়ই অস্বাভাবিকভাবে ওঠানামা করে। ফলে বাজারে অস্থিরতা দেখা দেয় এবং ক্ষতিগ্রস্ত হন এসব কোম্পানির বিনিয়োগকারীরা।
বলাবাহুল্য, পুঁজিবাজারে স্বল্পমূলধনী ও দুর্বল কোম্পানি কিংবা ‘জেড’ ক্যাটাগরির কোম্পানির দৌরাত্ম্য নতুন কোনো ঘটনা নয়। যখনই পুঁজিবাজারে টানা মন্দাভাব দেখা দেয়, তখন ভালো মৌলভিত্তিসম্পন্ন কোম্পানিগুলোর অধিকাংশেরই দর পড়ে গেলেও স্বল্পমূলধনী ও দুর্বল কোম্পানিগুলোর শেয়ার দর বাড়তে থাকে। পিই রেশিও অনুযায়ী এসব কোম্পানিতে বিনিয়োগ অনেক ঝুঁকিপূর্ণ। অধিকাংশ ক্ষেত্রেই এসব শেয়ায়ের দর বাড়ানোর পেছনে কোনো না কোনো চক্র সক্রিয় থাকে। কিন্তু সাধারণ বিনিয়োগকারীরা না বুঝে মুনাফার আশায় এসব কোম্পানিতে যখন বিনিয়োগ করে, ঠিক তখনই চক্রটি মুনাফা হাতিয়ে বেরিয়ে যায়। ফলে লোকসানে পড়ে ক্ষতিগ্রস্ত হন অনেকেই।
জানা যায়, চিহ্নিত চারটি কোম্পানিকে রিভিউর মাধ্যমে মূল বাজার থেকে ওটিসি-তে পাঠাতে চায় ডিএসই। এর মাধ্যমে বাজারে দীর্ঘমেয়াদি স্থিতিশীলতা বজায় থাকবে বলে মনে করছেন সংশ্লিষ্টরা। এছাড়া বাজারের স্বার্থে অনেকেই এসব কোম্পানিগুলোকে তালিকাচ্যুতি করার পক্ষে।
প্রসঙ্গত: এর আগেও বেশ কয়েকটি কোম্পানির সার্বিক পরিস্থিতি খতিয়ে দেখেছে ডিএসই। ওই সময় দীর্ঘদিন শেয়ারহোল্ডারদের লভ্যাংশ দিতে ব্যর্থ ও উৎপাদন বন্ধ থাকায় রহিমা ফুড এবং মডার্ন ডাইং কোম্পানি দুটিকে বাজার থেকে সরাসরি তালিকাচ্যুত করেছে ডিএসই।
এদিকে এসব কোম্পানিকে ওটিসি-তে পাঠানো কিংবা তালিকাচ্যুতি করাই সঠিক সিদ্ধান্ত কি নাÑ এটাও গভীরভাবে বিবেচনার বিষয়। কারণ এসব কোম্পানির শেয়ারহোল্ডার কিংবা বিনিয়োগকারীরা যাতে ক্ষতির শিকার না হনÑ সেটিও বিবেচনায় নিতে হবে।

Share
নিউজটি ৩১২ বার পড়া হয়েছে ।