সূচক কমলেও বেড়েছে লেনদেন

নিম্নমুখী প্রবণতায় সপ্তাহ শুরু

সময়: রবিবার, ডিসেম্বর ১৫, ২০১৯ ৬:১৩:০১ অপরাহ্ণ


মো. সাজিদ খান : ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জে (ডিএসই) সূচকের নিম্নমুখী প্রবণতায় সপ্তাহ শুরু হয়েছে। সূচকের পাশাপাশি কমেছে লেনদেন ও বাজারমূলধন। এছাড়া কমেছে অধিকাংশ কোম্পানির শেয়ার দর। ডিএসইতে আজ টাকার অংকে লেনদেন কমেছে ৪৩ কোটি ৫ লাখ ২২ হাজার টাকা। ডিএসই সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে।
বাজার পর্যালোচনায় দেখা যায়, আজ ডিএসই’র ব্রড ইনডেক্স আগের দিনের চেয়ে ১৫ পয়েন্ট কমে দাঁড়ায় ৪৪৯৮ পয়েন্টে। আর ডিএসই শরিয়াহ্্ সূচক ১ পয়েন্ট কমে ১০১৫ পয়েন্ট এবং ডিএসই৩০ সূচক ৯ পয়েন্ট কমে দাঁড়ায় ১৫৩৮ পয়েন্টে। দিনভর লেনদেন হওয়া ৩৫২টি কোম্পানি ও মিউচ্যুয়াল ফান্ডের মধ্যে দর বেড়েছে ১০০টির, কমেছে ২০১টির এবং অপরিবর্তিত রয়েছে ৫১টির। এদিন ডিএসই’তে মোট ১২ কোটি ১৬ লাখ ২৫ হাজার ৫৯০টি শেয়ার এক লাখ ২২ হাজার ৯২৬ বার হাতবদল হয়, যার মোট মূল্য ৩০৬ কোটি ৫৪ লাখ ৩ হাজার ৯৯৫ টাকা ৪০ পয়সা। আজ বাজার মূলধন ছিল ৩ লাখ ৪৩ হাজার ৩৪৬ কোটি ৭২ লাখ ৩ হাজার ৩৮৭ টাকা ৩৯ পয়সা।
এর আগের কার্যদিবসে ডিএসই’র ব্রড ইনডেক্স ২ পয়েন্ট বেড়ে দাঁড়ায় ৪৫১৪ পয়েন্টে। আর ডিএসই শরিয়াহ্্ সূচক ০.৮৬ পয়েন্ট কমে ১০১৬ পয়েন্ট এবং ডিএসই৩০ সূচক ৪ পয়েন্ট কমে দাঁড়ায় ১৫৪৮ পয়েন্টে। দিনভর লেনদেন হওয়া ৩৫৩টি কোম্পানি ও মিউচ্যুয়াল ফান্ডের মধ্যে দর বেড়েছে ১৬৯টির, কমেছে ১২৬টির এবং অপরিবর্তিত রয়েছে ৫৮টির। এদিন ডিএসই’তে মোট ১৩ কোটি ১৮ লাখ ২৯ হাজার ৩৪০টি শেয়ার এক লাখ ১৫ হাজার ১৫৯ বার হাতবদল হয়, যার মোট মূল্য ৩৪৯ কোটি ৫৯ লাখ ২৫ হাজার ৮৬০ টাকা ২০ পয়সা। ওইদিন বাজার মূলধন ছিল ৩ লাখ ৪৩ হাজার ৬৯৭ কোটি ৫৭ লাখ ৮৮ হাজার ৮৭০ টাকা ৩১ পয়সা।
ক্যাটাগরিভিত্তিক লেনদেনের ক্ষেত্রে ডিএসই’তে আজ ‘এ’ ক্যাটাগরির ২৫৮টি কোম্পানির মধ্যে দর বেড়েছে ৭০টি, কমেছে ১৫৫টি এবং অপরিবর্তিত ছিল ৩৩টির দর। ‘বি’ ক্যাটাগরির ৩৪টি কোম্পানির মধ্যে দর বেড়েছে ৮টি, কমে ২২টি এবং অপরিবর্তিত ছিল ৪টির। ‘এন’ ক্যাটাগরির ১০টি কোম্পানির মধ্যে দর বেড়েছে ৪টি, কমেছে ৫টি এবং অপরিবর্তিত রয়েছে ১টির। ‘জেড’ ক্যাটাগরির ৫০টি কোম্পানির মধ্যে দর বেড়েছে ১৮টি, কমেছে ১৯টি এবং অপরিবর্তিত ছিল ১৩টির। এছাড়া, ৩৬টি মিউচ্যুয়াল ফান্ডের দর বেড়েছে ৭টির, কমেছে ১২টির এবং অপরিবর্তিত ছিল ১৭টির দর।
এর আগের কার্যদিবসে ক্যাটাগরিভিত্তিক লেনদেনের ক্ষেত্রে ডিএসই’তে ‘এ’ ক্যাটাগরির ২৬০টি কোম্পানির মধ্যে দর বেড়েছে ১২৪টি, কমেছে ৯৯টি এবং অপরিবর্তিত ছিল ৩৭টির দর। ‘বি’ ক্যাটাগরির ৩৩টি কোম্পানির মধ্যে দর বেড়েছে ১৯টি, কমে ৯টি এবং অপরিবর্তিত ছিল ৫টির। ‘এন’ ক্যাটাগরির ১০টি কোম্পানির মধ্যে দর বেড়েছে ৫টি এবং কমেছে ১০টি। ‘জেড’ ক্যাটাগরির ৪৭টি কোম্পানির মধ্যে দর বেড়েছে ২১টি, কমেছে ১৩টি এবং অপরিবর্তিত ছিল ১৬টির। এছাড়া, ৩৬টি মিউচ্যুয়াল ফান্ডের দর বেড়েছে ৬টির, কমেছে ১৩টির এবং অপরিবর্তিত ছিল ১৩টির দর।
আজ ‘এ’ ক্যাটাগরির ২৫৮ কোম্পানির মোট ৭ কোটি ৪ লাখ ৪৮ হাজার ৬২৯টি শেয়ার ৬৮ হাজার ৪৬৭ বার হাতবদল হয়, যার মোট মূল্য ১৮৬ কোটি ৯ লাখ ১৮ হাজার টাকা। ‘বি’ ক্যাটাগরির ৩৩ কোম্পানির মোট মূল্য এক কোটি ৬২ লাখ ৯২ হাজার ৮২টি শেয়ার ১৪ হাজার ৫৩৮বার হাতবদল হয়, যার মোট মূল্য মূল্য ৪৩ কোটি ৬৬ লাখ ৬৩ হাজার টাকা। ‘এন’ ক্যাটাগরির ১০ কোম্পানির মোট ২ কোটি ৬৪ লাখ ২৮ হাজার ৯১০টি শেয়ার ৩৫ হাজার ৪১৫ বার হাতবদল হয়, যার মোট মূল্য মূল্য ৪৬ কোটি ৯৮ লাখ ১৯ হাজার টাকা। ‘জেড’ ক্যাটাগরির ৪৭ কোম্পানির মোট ৩৯ লাখ ৩২ হাজার ৩৫৯টি শেয়ার ৪ হাজার ৪৬৫ বার হাতবদল হয়, যার মোট মূল্য ১০ কোটি ১৭ লাখ ২৮ হাজার টাকা। এছাড়া ৩৬টি মিউচ্যুয়াল ফান্ডের ৮৭ লাখ ৫৬ হাজার ৬৩৪টি ইউনিট ২ হাজার ৫৯১ বার হাতবদল হয়, যার মোট মূল্য ৭ কোটি ১ লাখ টাকা।
এর আগের কার্যদিবসে ‘এ’ ক্যাটাগরির ২৬২ কোম্পানির মোট ৮ কোটি ৮৯ লাখ ৭০ হাজার ৪২৯টি শেয়ার ৮০ হাজার ২৯০ বার হাতবদল হয়, যার মোট মূল্য ২৪৪ কোটি ৪১ লাখ ৫৬ হাজার টাকা। ‘বি’ ক্যাটাগরির ৩৩ কোম্পানির মোট মূল্য এক কোটি ৫১ লাখ ৮৩ হাজার ৩৮৭টি শেয়ার ১৫ হাজার ৩৭বার হাতবদল হয়, যার মোট মূল্য মূল্য ৪১ কোটি ৮৮ লাখ ৬৮ হাজার টাকা। ‘এন’ ক্যাটাগরির ১০ কোম্পানির মোট এক কোটি ৮২ লাখ ৮০ হাজার ৪৩৩টি শেয়ার ১৫ হাজার ৫৫৮ বার হাতবদল হয়, যার মোট মূল্য মূল্য ৩৩ কোটি ৮৫ লাখ ৪৪ হাজার টাকা। ‘জেড’ ক্যাটাগরির ৪৭ কোম্পানির মোট ৪৮ লাখ ৪৫ হাজার ৮৯৯টি শেয়ার ৪ হাজার ২২৬ বার হাতবদল হয়, যার মোট মূল্য ৭ কোটি ৯৩ লাখ টাকা। এছাড়া ৩৬টি মিউচ্যুয়াল ফান্ডের এক কোটি ১৭ লাখ ৫০ হাজার ৯৯৮টি ইউনিট ৩ হাজার ২১১ বার হাতবদল হয়, যার মোট মূল্য ৯ কোটি ৪৩ লাখ ৯০ হাজার টাকা।
প্রধান খাতগুলোর মধ্যে আজ ব্যাংক খাতে ৮৫ লাখ ৮২ হাজার ৬৪৩টি শেয়ার ৩ হাজার ৮৯৯বার হাতবদল হয়, যার মোট মূল্য ১২ কোটি ৭৯ লাখ টাকা। বীমা খাতে ২ কোটি ২৫ লাখ ৪২ হাজার ৮২৩টি শেয়ার ১৮ হাজার ৪৩৩বার হাতবদল হয়, যার মোট মূল্য ৬৮ কোটি ৪০ লাখ টাকা। আর্থিক খাতে ৫৬ লাখ ৯০ হাজার ৪০৯টি শেয়ার ২ হাজার ৭৫১বার হাতবদল হয়, যার মোট মূল্য ৮ কোটি ৪৯ লাখ টাকা। প্রকৌশল খাতে ৮১ লাখ ৩৭ হাজার ৪৬৯টি শেয়ার ১৪ হাজার ৫৪বার হাতবদল হয়, যার মোট মূল্য ৩০ কোটি ৮১ লাখ ৯০ হাজার টাকা। ওষুধ ও রসায়ন খাতে ৫৮ লাখ ৬১ হাজার ৪৪টি শেয়ার ৯ হাজার ৭৮১বার হাতবদল হয়, যার মোট মূল্য ২৬ কোটি ২৪ লাখ ৯০ হাজার টাকা। বস্ত্র খাতে ৪ কোটি ১২ লাখ ২ হাজার ৮৪৭টি শেয়ার ৪৩ হাজার ৫৫৯বার হাতবদল হয়, যার মোট মূল্য ৬৩ কোটি ৬৩ লাখ ২০ হাজার টাকা। বিদ্যুৎ ও জ্বালানি খাতে ২৯ লাখ ৭১ হাজার ৯৪৪টি শেয়ার ৪ হাজার ৮০৬বার হাতবদল হয়, যার মোট মূল্য ১৪ কোটি ৪১ লাখ ৯০ হাজার টাকা।
এর আগের কার্যদিবসে ব্যাংক খাতে এক কোটি ৩৯ লাখ ৭১ হাজার ৫০টি শেয়ার ৫ হাজার ৭বার হাতবদল হয়, যার মোট মূল্য ২০ কোটি ৮৫ লাখ ৮০ হাজার টাকা। বীমা খাতে ২ কোটি ৪৫ লাখ ৩৭ হাজার ৫৩৪টি শেয়ার ২০ হাজার ৬১বার হাতবদল হয়, যার মোট মূল্য ৭৪ কোটি ২৩ লাখ টাকা। আর্থিক খাতে ৭০ লাখ ১২ হাজার ৭২৭টি শেয়ার ৩ হাজার ৬১২বার হাতবদল হয়, যার মোট মূল্য ৯ কোটি ৪১ লাখ ৪০ হাজার টাকা। প্রকৌশল খাতে ৭৪ লাখ ৬১ হাজার ১৭৬টি শেয়ার ১৪ হাজার ৭৭২বার হাতবদল হয়, যার মোট মূল্য ৩৩ কোটি ৫১ লাখ ৭০ হাজার টাকা। ওষুধ ও রসায়ন খাতে ৫১ লাখ ৭১ হাজার ৯৯৮টি শেয়ার ১০ হাজার ৩৭২বার হাতবদল হয়, যার মোট মূল্য ২৮ কোটি ৯৮ লাখ ৫০ হাজার টাকা। বস্ত্র খাতে ৩ কোটি ৫৮ লাখ ৪৪ হাজার ১৭৫টি শেয়ার ২৪ হাজার ৯৪৩বার হাতবদল হয়, যার মোট মূল্য ৫৭ কোটি ৯২ লাখ ৮০ হাজার টাকা। বিদ্যুৎ ও জ্বালানি খাতে ৫৮ লাখ ৮৪ হাজার ৭৯২টি শেয়ার ৬ হাজার ৯২২বার হাতবদল হয়, যার মোট মূল্য ২৭ কোটি ৪৮ লাখ ৯০ হাজার টাকা।
অন্যদিকে, চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জে (সিএসই) আজ সিএসই’র সার্বিক সূচক ৫৮ পয়েন্ট কমে দাঁড়ায় ১৩ হাজার ৬৭৪ পয়েন্টে। সিএসইএক্স সূচক ৩৫ পয়েন্ট কমে দাঁড়ায় ৮ হাজার ২৯৫ পয়েন্টে। আজ মোট ২১৯টি কোম্পানির শেয়ার লেনদেন হয়েছে। এর মধ্যে দর বেড়েছে ৫৭টির, কমেছে ১২৯টির এবং অপরিবর্তিত ছিল ৩৩ কোম্পানির শেয়ার দর। আর দিন শেষে ১ কোটি ১ লাখ ৫৯ হাজার ৫১৫টি শেয়ার ও ইউনিট ১৪ হাজার ৯৫৬ বার হাতবদল হয়েছে, মোট মূল্য ছিল ১৯ কোটি ৭০ লাখ ২৮ হাজার ৮৪ টাকা। আগের কার্যদিবসের তুলনায় ৬ কোটি ৭৭ লাখ ৮৯ হাজার ৯২ টাকা কম। বাজার মূলধন ছিল ২ লাখ ৭২ হাজার ১৮৮ কোটি ২২ লাখ ৬০ হাজার টাকা।
এর আগের কার্যদিবসে সিএসইতে সার্বিক সূচক ১৩ পয়েন্ট বেড়ে দাঁড়িয়েছিল ১৩ হাজার ৭৩৩ পয়েন্টে। সিএসইএক্স সূচক ৭ পয়েন্ট বেড়ে দাঁড়িয়েছিল ৮ হাজার ৩৩১ পয়েন্টে। মোট ২৩৬টি কোম্পানির শেয়ার লেনদেন হয়েছিল। এর মধ্যে দর বেড়েছিল ১০৯টির, কমেছিল ৯০টির এবং অপরিবর্তিত ছিল ৩৭ কোম্পানির শেয়ার দর। আর দিন শেষে ১ কোটি ৩০ লাখ ১ হাজার ৪০১টি শেয়ার ও ইউনিট ১০ হাজার ১৮১ বার হাতবদল হয়েছিল, মোট মূল্য ছিল ২৬ কোটি ৪৮ লাখ ১৭ হাজার ১৭৬ টাকা। আগের কার্যদিবসের তুলনায় ২ কোটি ৭৬ লাখ ৪৯ হাজার ৯৯৭ টাকা বেশি। বাজার মূলধন ছিল ২ লাখ ৭৩ হাজার ৬০ কোটি ২৪ লাখ ২০ হাজার টাকা।

দৈনিক শেয়ারবাজার প্রতিদিন/এসএ/খান

Share
নিউজটি ৪২২ বার পড়া হয়েছে ।
Tagged