ব্যাংকিং খাতে সম্পদমূল্য বেড়েছে ৩ হাজার ৩০৬ কোটি টাকা

সময়: সোমবার, আগস্ট ১৯, ২০১৯ ৭:২৭:১৮ পূর্বাহ্ণ


তাকী মোহাম্মদ জোবায়ের : চলতি বছরের জুনে অধিকাংশ ব্যাংকের সম্পদ মূল্য বেড়েছে। গত ২০১৮ সালের জুনের তুলনায় ব্যাংক খাতের সম্পদ মূল্য বেড়েছে ৩ হাজার ৩০৬ কোটি ২১ লাখ টাকা। পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত ৩০টি ব্যাংকের মধ্যে ২৩টি ব্যাংকের শেয়ারপ্রতি সমন্বিত সম্পদ মূল্য (এনএভি) বেড়েছে। আর ৭টি ব্যাংকের এনএভি কমেছে। ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জের (ডিএসই) হালনাগাদ উপাত্ত বিশ্লেষণে এসব তথ্য মিলেছে।
যে ব্যাংকগুলোর সম্পদ মূল্য বেড়েছে সেগুলো হলোÑ ব্র্যাক, ডাচ্্-বাংলা, ইউনাইটেড কমার্শিয়াল, আল-আরাফাহ, ব্যাংক এশিয়া, ঢাকা, এক্সিম, ফার্স্ট সিকিউরিটি, আইএফআইসি, ইসলামী, যমুনা, মার্কেন্টাইল, মিউচ্যুয়াল ট্রাস্ট, এনসিসি, ওয়ান, প্রিমিয়ার, প্রাইম, পূবালী, শাহজালাল, স্যোসাল ইসলামী, ট্রাস্ট, উত্তরা ও স্টান্ডার্ড ব্যাংক। আর ন্যাশনাল, ইস্টার্ন, দি সিটি, এবি, সাউথইস্ট, রূপালী ও আইসিবি ইসলামী ব্যাংকের সম্পদ মূল্য কমেছে।
পুঁজিবাজারে ব্যাংক খাতের সূচকের নিম্নমুখী অবস্থার মধ্যেও এই খাতের অধিকাংশ ব্যাংকের সম্পদ মূল্য বৃদ্ধির খবর আশান্বিত করছে বাজার সংশ্লিষ্টদের। তাদের ধারণা, সম্পদ মূল্য বাড়ায় অনেকেই ব্যাংকগুলোর শেয়ারের প্রতি আকৃষ্ট হবেন। এতে ব্যাংক খাতের সূচক ঘুরে দাঁড়ানোর প্রবল সম্ভাবনা থাকবে। আর এই খাতটির আকার সবচেয়ে বড় হওয়ায় এর সরাসরি ইতিবাচক প্রভাব পড়বে পুরো শেয়ারবাজারে।
এই প্রসঙ্গে পুঁজিবাজার বিশেষজ্ঞ ও ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের অর্থনীতি বিভাগের অধ্যাপক আবু আহমাদ ‘দৈনিক শেয়ারবাজার প্রতিদিন’কে বলেন, ‘বেশিরভাগ ব্যাংকের এনএভি বাড়ার খবরে এখন অনেকেই আবার ব্যাংক খাতের শেয়ারে আগ্রহী হবে। সাধারণ বিনিয়োগকারীরাও এ খাতে হয়তো বিনিয়োগ বাড়াবে। বজারে এর ইতিবাচক প্রভাব পড়বে বলে মনে হচ্ছে।’
যে ব্যাংকগুলোর এনএভি বেড়েছে
ব্র্যাক ব্যাংক : চলতি বছরের জুনে গতবছরের জুনের তুলনায় ব্র্যাক ব্যাংকের এনএভি বেড়েছে ৫ টাকা ২০ পয়সা। এই হিসেবে ব্যাংকটির শেয়ারপ্রতি সম্পদমূল্য বেড়েছে ৬৪১ কোটি ৩৫ লাখ টাকা। ২০১৯ আর্থিক বছরের ৩০ জুন পর্যন্ত সময়ে কোম্পানিটির শেয়ার প্রতি সমন্বিত সম্পদ মূল্য দাঁড়িয়েছে ৩০ টাকা ৫৬ পয়সা। ২০১৮ আর্থিক বছরের একই সময়ে সম্পদ মূল্য ছিল ২৫ টাকা ৩৬ পয়সা।
ডাচ্্-বাংলা ব্যাংক : চলতি বছরের জুনে গতবছরের জুনের তুলনায় ডাচ-বাংলা ব্যাংকের এনএভি বেড়েছে ৮ টাকা ৯৬ পয়সা। এই হিসেবে ব্যাংকটির সমন্বিত সম্পদমূল্য বেড়েছে ৪৪৮ কোটি টাকা। ২০১৯ আর্থিক বছরের ৩০ জুন র্পযন্ত সময়ে কোম্পানিটির শেয়ারপ্রতি সমন্বিত সম্পদ মূল্য (এনএভি) দাঁড়িয়েছে ৪৯ টাকা ৯৭ পয়সা। ২০১৮ আর্থিক বছরের একই সময়ে এনএভি মূল্য ৪১ টাকা ১ পয়সা।
প্রিমিয়ার ব্যাংক : চলতি বছরের জুনে গতবছরের জুনের তুলনায় প্রিমিয়ার ব্যাংকের এনএভি বেড়েছে ২ টাকা ৮৯ পয়সা। এই হিসেবে ব্যাংকটির সম্পদ মূল্য বেড়েছে ২৬৭ কোটি ৬ লাখ টাকা। ২০১৯ আর্থিক বছরের ৩০ জুন পর্যন্ত সময়ে কোম্পানিটির শেয়ারপ্রতি সমন্বিত সম্পদ মূল্য (এনএভি) দাঁড়িয়েছে ১৭ টাকা ৯৮ পয়সা। ২০১৮ আর্থিক বছরের একই সময়ে এনএভি ছিল ১৫ টাকা ৯ পয়সা।
ট্রাস্ট ব্যাংক : চলতি বছরের জুনে গতবছরের জুনের তুলনায় এনএভি বেড়েছে ৩ টাকা ৮৩ পয়সা। এই হিসেবে ব্যাংকটির সম্পদ মূল্য বেড়েছে ২৩৪ কোটি ৬৫ লাখ টাকা। ২০১৯ আর্থিক বছরের ৩০ জুন র্পযন্ত সময়ে কোম্পানিটির শেয়ারপ্রতি সমন্বিত সম্পদ মূল্য (এনএভি) দাঁড়িয়েছে ২৩ টাকা ৩৫ পয়সা। ২০১৮ আর্থিক বছরের একই সময়ে এনএভি ১৯ টাকা ৫২ পয়সা।
আইএফআইসি ব্যাংক : চলতি বছরের জুনে গতবছরের জুনের তুলনায় আইএফআইসি ব্যাংকের এনএভি বেড়েছে ১ টাকা ৭৬ পয়সা। এই হিসেবে ব্যাংকটির সম্পদমূল্য বেড়েছে ২৩৫ কোটি ৬২ লাখ টাকা। ২০১৯ আর্থিক বছরের ৩০ জুন পর্যন্ত সময়ে কোম্পানিটির শেয়ারপ্রতি সমন্বিত সম্পদ মূল্য (এনএভি) দাঁড়িয়েছে ১৭ টাকা ১২ পয়সা। ২০১৮ আর্থিক বছরের একই সময়ে সম্পদ মূল্য ছিল ১৫ টাকা ৩৬ পয়সা।
ব্যাংক এশিয়া : চলতি বছরের জুনে গতবছরের জুনের তুলনায় ব্যাংক এশিয়ার এনএভি বেড়েছে ৫১ পয়সা। এই হিসেবে আলোচ্য সময়ে ব্যাংকটির সম্পদ মূল্য বেড়েছে ৫৯ কোটি ৪৬ লাখ টাকা। ২০১৯ আর্থিক বছরের ৩০ জুন পর্যন্ত সময়ে কোম্পানিটির শেয়ারপ্রতি সম্পদ মূল্য (এনএভি) দাঁড়িয়েছে ২০ টাকা ৪৬ পয়সা। ২০১৮ আর্থিক বছরের একই সময়ে সম্পদ মূল্য ছিল ১৯ টাকা ৯৫ পয়সা।
মিউচ্যুয়াল ট্রাস্ট ব্যাংক : চলতি বছরের জুনে গতবছরের সেপ্টেম্বরের তুলনায় ব্যাংকটির এনএভি বেড়েছে ৫ পয়সা। এই হিসেবে নয় মাসের ব্যবধানে ব্যাংকটির সম্পদ মূল্য বেড়েছে ৩৩ কোটি ৪৯ লাখ টাকা। ২০১৯ আর্থিক বছরের ৩০ জুন র্পযন্ত সময়ে কোম্পানিটির শেয়ারপ্রতি সমন্বিত সম্পদ মূল্য (এনএভি) দাঁড়িয়েছে ২২ টাকা ৩০ পয়সা। গতবছরের জুনে এনএভি প্রকাশ করেনি ব্যাংকটি। ২০১৮ সালের সেপ্টেম্বরে ব্যাংকটির এনএভি ছিল ২২ টাকা ২৫ পয়সা।
মার্কেন্টাইল ব্যাংক : চলতি বছরের জুনে গতবছরের জুনের তুলনায় ব্যাংকটির এনএভি বেড়েছে ৪১ পয়সা। এই হিসেবে ব্যাংকটির সম্পদ মূল্য বেড়েছে ৩৮ কোটি ৪২ লাখ টাকা। ২০১৯ আর্থিক বছরের ৩০ জুন পর্যন্ত সময়ে কোম্পানিটির শেয়ারপ্রতি সমন্বিত সম্পদ মূল্য দাঁড়িয়েছে ২১ টাকা ৭১ পয়সা। ২০১৮ আর্থিক বছরের একই সময়ে সম্পদ মূল্য ছিল ২১ টাকা ৩০ পয়সা।
এনসিসি ব্যাংক : চলতি বছরের জুনে গতবছরের জুনের তুলনায় এনএভি বেড়েছে ১ টাকা ৯ পয়সা। এই হিসেবে ব্যাংকটির সম্পদ মূল্য বেড়েছে ৯৬ কোটি ২৭ লাখ টাকা। ২০১৯ আর্থিক বছরের ৩০ জুন পর্যন্ত সময়ে কোম্পানিটির শেয়ারপ্রতি সমন্বিত সম্পদ মূল্য দাঁড়িয়েছে ২১ টাকা ৪৭ পয়সা। ২০১৮ আর্থিক বছরের একই সময়ে শেয়ারপ্রতি সম্পদ মূল্য ছিল ২০ টাকা ৩৮ পয়সা।
পূবালী ব্যাংক : চলতি বছরের জুনে গত বছরের জুনের তুলনায় পূবালী ব্যাংকের এনএভি বেড়েছে ১ টাকা ৭৭ পয়সা। এই হিসেবে ব্যাংকটির সম্পদমূল্য বেড়েছে ১৯২ কোটি ২৯ লাখ টাকা। কোম্পানিটির ২০১৯ আর্থিক বছরের ৩০ জুন পর্যন্ত সময়ে কোম্পানিটির শেয়ারপ্রতি সম্পদ মূল্য দাঁড়িয়েছে ২৭ টাকা ৬৫ পয়সা। ২০১৮ আর্থিক বছরের একই সময়ে এনএভি ছিল ২৫ টাকা ৭৮ পয়সা।
ইসলামী ব্যাংক : চলতি বছরের জুনে গতবছরের জুনের তুলনায় ইসলামী ব্যাংকের এনএভি বেড়েছে ৩ টাকা ১১ পয়সা। এই হিসেবে আলোচ্য সময়ে ব্যাংকটির সমন্বিত সম্পদমূল্য বেড়েছে ৫শ কোটি ৭১ লাখ টাকা। ২০১৯ আর্থিক বছরের ৩০ জুন পর্যন্ত সময়ে কোম্পানিটির শেয়ারপ্রতি সম্পদ মূল্য দাঁড়িয়েছে ৩৫ টাকা ৫৩ পয়সা। ২০১৮ আর্থিক বছরের একই সময়ে সম্পদ মূল্য ছিল ৩২ টাকা ৪২ পয়সা।
ঢাকা ব্যাংক : চলতি বছরের জুনে গতবছরের জুনের তুলনায় ঢাকা ব্যাংকের এনএভি বেড়েছে ১ টাকা ২৪ পয়সা। এ হিসেবে ব্যাংকটির সম্পদ মূল্য বেড়েছে ১০৫ কোটি ৮০ লাখ টাকা। ২০১৯ আর্থিক বছরের ৩০ জুন র্পযন্ত সময়ে কোম্পানিটির শেয়ারপ্রতি সম্পদ মূল্য দাঁড়িয়েছে ২০ টাকা ৪৯ পয়সা। ২০১৮ আর্থিক বছরের একই সময়ে সম্পদ মূল্য ছিল ১৯ টাকা ২৫ পয়সা।
আল-আরাফা ইসলামী ব্যাংক : চলতি বছরের জুনে গতবছরের জুনের তুলনায় এনএভি বেড়েছে ৯২ পয়সা। এই হিসেবে ব্যাংকটির সম্পদ মূল্য বেড়েছে ৯৭ কোটি ৯৭ লাখ। ২০১৯ আর্থিক বছরের ৩০ জুন র্পযন্ত সময়ে কোম্পানিটির শেয়ারপ্রতি সমন্বিত সম্পদ মূল্য দাঁড়িয়েছে ১৯ টাকা ৪৩ পয়সা। ২০১৮ আর্থিক বছরের একই সময়ে সম্পদ মূল্য ছিল ১৮ টাকা ৫১ পয়সা।
প্রাইম ব্যাংক : চলতি বছরের জুনে গতবছরের জুনের তুলনায় ব্যাংকটির এনএভি বেড়েছে ৮৯ পয়সা। এই হিসেবে এক বছরের ব্যবধানে ব্যাংকটির সম্পদ মূল্য বেড়েছে ১শ কোটি ৭৭ লাখ টাকা। ২০১৯ আর্থিক বছরের ৩০ জুন পর্যন্ত সময়ে কোম্পানিটির শেয়ারপ্রতি সমন্বিত সম্পদ মূল্য দাঁড়িয়েছে ২২ টাকা ৮২ পয়সা। ২০১৮ আর্থিক বছরের একই সময়ে সম্পদ মূল্য ছিল ২১ টাকা ৯৩ পয়সা।
সোস্যাল ইসলামী ব্যাংক : চলতি বছরের জুনে গতবছরের জুনের তুলনায় ব্যাংকটির এনএভি বেড়েছে ১ টাকা ৮১ পয়সা। এই হিসেবে ব্যাংকটির সম্পদমূল্য বেড়েছে ১৬১ কোটি ৬৯ লাখ টাকা। ২০১৯ আর্থিক বছরের ৩০ জুন পর্যন্ত সময়ে কোম্পানিটির শেয়ার প্রতি সম্পদ মূল্য দাঁড়িয়েছে ১৮ টাকা ৬ পয়সা। ২০১৮ আর্থিক বছরের একই সময়ে সম্পদ মূল্য ছিল ১৬ টাকা ২৫ পয়সা।
উত্তরা ব্যাংক : চলতি বছরের জুনে গতবছরের জুনের তুলনায় ব্যাংকটির এনএভি বেড়েছে ৩৫ পয়সা। এই হিসেবে ব্যাংকটির সম্পদ মূল্য বেড়েছে ১৪২ কোটি ৮৩ লাখ টাকা। ২০১৯ আর্থিক বছরের ৩০ জুন পর্যন্ত সময়ে কোম্পানিটির শেয়ার প্রতি সমন্বিত সম্পদ মূল্য দাঁড়িয়েছে ৩৪ টাকা ৬৪ পয়সা। ২০১৮ আর্থিক বছরের একই সময়ে সম্পদ মূল্য ছিল ৩৪ টাকা ২৯ পয়সা।
ফার্স্ট সিকিউরিটি ইসলামী ব্যাংক : চলতি বছরের জুনে গতবছরের জুনের তুলনায় ব্যাংকটিরি এনএভি বেড়েছে ২ টাকা ৩৬ পয়সা। এই হিসেবে ব্যাংকটির সমন্বিত সম্পদ মূল্য বেড়েছে ২০৩ কোটি ৫৫ লাখ টাকা। ২০১৯ আর্থিক বছরের ৩০ জুন পর্যন্ত সময়ে কোম্পানিটির শেয়ার প্রতি সমন্বিত সম্পদ মূল্য দাঁড়িয়েছে ১৬ টাকা ৪২ পয়সা। ২০১৮ আর্থিক বছরের একই সময়ে সম্পদ মূল্য ছিল ১৪ টাকা ৬ পয়সা।
যমুনা ব্যাংক : চলতি বছরের জুনে গতবছরের জুনের তুলনায় যমুনা ব্যাংকের এনএভি বেড়েছে ১ পয়সা। এই হিসেবে ব্যাংকটির সমন্বিত সম্পদ মূল্য বেড়েছে ৭৫ লাখ টাকা। ২০১৯ আর্থিক বছরের ৩০ জুন পর্যন্ত সময়ে কোম্পানিটির শেয়ারপ্রতি সমন্বিত সম্পদ মূল্য দাঁড়িয়েছে ২১ টাকা ৮০ পয়সা। ২০১৮ আর্থিক বছরের একই সময়ে সম্পদ মূল্য ছিল ২১ টাকা ৭৯ পয়সা।
স্ট্যান্ডার্ড ব্যাংক : চলতি বছরের জুনে গতবছরের জুনের তুলনায় ব্যাংকটির এনএভি বেড়েছে ১ টাকা ৫৩ পয়সা। এই হিসেবে এক বছরের ব্যবধানে ব্যাংকটির সম্পদমূল্য বেড়েছে ১৪৬ কোটি ৫৯ লাখ টাকা। ২০১৯ আর্থিক বছরের ৩০ জুন পর্যন্ত সময়ে কোম্পানিটির শেয়ার প্রতি সমন্বিত সম্পদ মূল্য দাঁড়িয়েছে ১৭ টাকা ৮ পয়সা। ২০১৮ আর্থিক বছরের একই সময়ে সম্পদ মূল্য ছিল ১৫ টাকা ৫৫ পয়সা।
এক্সিম ব্যাংক : চলতি বছরের জুনে গতবছরের জুনের তুলনায় এক্সিম ব্যাংকের এনএভি বেড়েছে ৮৩ পয়সা। এই হিসেবে ব্যাংকটির সমন্বিত সম্পদ মূল্য বড়েছে ১১৭ কোটি ২২ লাখ টাকা। ২০১৯ আর্থিক বছরের ৩০ জুন পর্যন্ত সময়ে কোম্পানিটির শেয়ার প্রতি সমন্বিত সম্পদ মূল্য দাঁড়িয়েছে ২০ টাকা ৫৪ পয়সা। ২০১৮ আর্থিক বছরের একই সময়ে সম্পদ মূল্য ছিল ১৯ টাকা ৭১ পয়সা।
ওয়ান ব্যাংক : গতবছরের জুনের তুলনায় চলতি বছরের জুনে ওয়ান ব্যাংকের এনএভি বেড়েছে ১ টাকা ৯৩ পয়সা। এই হিসেবে এক বছরের ব্যবধানে ব্যাংকটির সম্পদ মূল্য বেড়েছে ১৪৭ কোটি ৯৪ লাখ টাকা। ২০১৯ আর্থিক বছরের ৩০ জুন পর্যন্ত সময়ে কোম্পানিটির শেয়ারপ্রতি সমন্বিত সম্পদ মূল্য (এনএভি) দাঁড়িয়েছে ১৯ টাকা ৪৪ পয়সা। ২০১৮ আর্থিক বছরের একই সময়ে এনএভি ছিল ১৭ টাকা ৫১ পয়সা।
শাহজালাল ইসলামী ব্যাংক : গতবছরের জুনের তুলনায় চলতি বছরের জুনে ওয়ান ব্যাংকের এনএভি বেড়েছে ১ টাকা ৭৯ পয়সা। এই হিসেবে এক বছরের ব্যবধানে ব্যাংকটির সম্পদমূল্য বেড়েছে ১৫১ কোটি ৮৯ লাখ টাকা। ২০১৯ আর্থিক বছরের ৩০ জুন পর্যন্ত সময়ে কোম্পানিটির শেয়ারপ্রতি সমন্বিত সম্পদ মূল্য (এনএভি) দাঁড়িয়েছে ১৮ টাকা ৭৫ পয়সা। ২০১৮ আর্থিক বছরের একই সময়ে এনএভি ছিল ১৬ টাকা ৯৬ পয়সা।
ইউনাইটেড কমার্শিয়াল ব্যাংক : গতবছরের জুনের তুলনায় চলতি বছরের জুনে ব্যাংকটির এনএভি বেড়েছে ২ টাকা ৬৪ পয়সা। এই হিসেবে এক বছরের ব্যবধানে ব্যাংকটির সম্পদমূল্য বেড়েছে ৩০৬ কোটি ১২ লাখ টাকা। ২০১৯ আর্থিক বছরের ৩০ জুন পর্যন্ত সময়ে কোম্পানিটির শেয়ারপ্রতি সমন্বিত সম্পদ মূল্য (এনএভি) দাঁড়িয়েছে ২৮ টাকা ১৮ পয়সা। ২০১৮ আর্থিক বছরের একই সময়ে এনএভি ছিল ২৫ টাকা ৫৪ পয়সা।

যে ব্যাংকগুলোর সম্পদ মূল্য কমেছে
এবি ব্যাংক : গতবছরের জুনের তুলনায় চলতি বছরের জুনে এবি ব্যাংকের এনএভি কমেছে ৫৪ পয়সা। এই হিসেবে ব্যাংকটির সম্পদমূল্য কমেছে ৪০ কোটি ৯৪ লাখ টাকা। ২০১৯ আর্থিক বছরের ৩০ জুন পর্যন্ত সময়ে কোম্পানিটির শেয়ারপ্রতি সমন্বিত সম্পদ মূল্য (এনএভি) দাঁড়িয়েছে ৩১ টাকা ৬৬ পয়সা। ২০১৮ আর্থিক বছরের একই সময়ে এনএভি ছিল ৩২ টাকা ২ পয়সা।
সাউথইস্ট ব্যাংক : গতবছরের জুনের তুলনায় চলতি বছরের জুনে ব্যাংকটির এনএভি কমেছে ৩ টাকা ৫০ পয়সা। এই হিসেবে এক বছরের ব্যবধানে ব্যাংকটির সম্পদ মূল্য কমেছে ৪০৬ কোটি টাকা। ২০১৯ আর্থিক বছরের ৩০ জুন পর্যন্ত সময়ে কোম্পানিটির শেয়ারপ্রতি সমন্বিত সম্পদ মূল্য (এনএভি) দাঁড়িয়েছে ২৬ টাকা ২৩ পয়সা। ২০১৮ আর্থিক বছরের একই সময়ে এনএভি ছিল ২৯ টাকা ৭৩ পয়সা।
সিটি ব্যাংক : চলতি বছরের জুনে গতবছরের জুনের তুলনায় সিটি ব্যাংকের এনএভি কমেছে ১ টাকা। এই হিসেবে ব্যাংকটির সম্পদমূল্য কমেছে ১০১ কোটি ৬৪ লাখ টাকা। ২০১৯ আর্থিক বছরের ৩০ জুন পর্যন্ত সময়ে কোম্পানিটির শেয়ারপ্রতি সমন্বিত সম্পদ মূল্য দাঁড়িয়েছে ২৬ টাকা ৭৬ পয়সা। ২০১৮ আর্থিক বছরের একই সময়ে সম্পদ মূল্য ছিল ২৭ টাকা ৭৬ পয়সা।
ইস্টার্ন ব্যাংক : চলতি বছরের জুনে গতবছরের জুনের তুলনায় ইস্টার্ন ব্যাংকের এনএভি কমেছে ৩২ পয়সা। এই হিসেবে ব্যাংকটির সমন্বিত সম্পদ মূল্য কমেছে ২৫ কোটি ৯৬ লাখ টাকা। ২০১৯ আর্থিক বছরের ৩০ জুন পর্যন্ত সময়ে কোম্পানিটির শেয়ারপ্রতি সম্পদ মূল্য দাঁড়িয়েছে ২৮ টাকা ৯৩ পয়সা। ২০১৮ আর্থিক বছরের একই সময়ে সম্পদ মূল্য ছিল ২৯ টাকা ২৫ পয়সা।
ন্যাশনাল ব্যাংক : গতবছরের জুনের তুলনায় চলতি বছরের জুনে ব্যাংকটির এনএভি ৪৮ পয়সা কমেছে। এই হিসেবে ব্যাংকটির সম্পদ মূল্য কমেছে ১২৭ কোটি ৪৩ লাখ টাকা। ২০১৯ আর্থিক বছরের ৩০ জুন পর্যন্ত সময়ে কোম্পানিটির শেয়ার প্রতি সমন্বিত সম্পদ মূল্য দাঁড়িয়েছে ১৭ টাকা ১৯ পয়সা। ২০১৮ আর্থিক বছরের একই সময়ে সম্পদ মূল্য ছিল ১৭ টাকা ৬৭ পয়সা।
রূপালি ব্যাংক : চলতি বছরের জুনে গতবছরের জুনের তুলনায় রূপালী ব্যাংকের এনএভি কমেছে ৯ টাকা ৪ পয়সা। এই হিসেবে ব্যাংকটির সম্পদমূল্য কমেছে ৩৭৪ কোটি ৪০ লাখ টাকা। ২০১৯ আর্থিক বছরের ৩০ জুন পর্যন্ত সময়ে কোম্পানিটির শেয়ার প্রতি সমন্তিত সম্পদ মূল্য দাঁড়িয়েছে ৪৫ টাকা ৯৮ পয়সা। ২০১৮ আর্থিক বছরের একই সময় এনএভি ছিল ৫৫ টাকা ২ পয়সা।
আইসিবি ইসলামী ব্যাংক: দীর্ঘদিন ধরে ইপিএস ও এনএভিতে ঋণাত্বক অবস্থানে থাকা আইসিবি ইসলামী ব্যাংকের এনএভি ঋণাত্মক হারে বেড়েছে। গতবছরের জুনের তুলনায় চলতি বছরের জুনে এনএভি ঋণাত্মক হারে বেড়েছে ৭২ পয়সা। এই হিসেবে ব্যাংকটির সমন্বিত সম্পদ মূল্য ৪৭ কোটি ৮৬ লাখ টাকা ঋণাত্মক হারে বেড়েছে। অর্থাৎ ব্যাংকটির অবস্থা আরও খারাপের দিকে গেছে। ২০১৯ আর্থিক বছরের ৩০ জুন পর্যন্ত সময়ে কোম্পানিটির শেয়ার প্রতি সমন্বিত সম্পদ মূল্য দাঁড়িয়েছে ঋণাত্মক ১৬ টাকা ৭৭ পয়সা। ২০১৮ আর্থিক বছরের একই সময়ে সম্পদ মূল্য ছিল ঋণাত্মক ১৬ টাকা ৫ পয়সা।
দৈনিক শেয়ারবাজার প্রতিদিন/এসএ/খান

Share
নিউজটি ৪১১ বার পড়া হয়েছে ।
Tagged